Horoscope

মিথুন রাশির ২০২৪ বছরটা কেমন কাটবে ও কি করলে ভালো থাকবেন

লেখক জ্যোতির্বিদ শিবশংকর ভারতীর কলমে মিথুন রাশির ২০২৪ সালের রাশিফল - কেমন কাটবে ২০২৪ সালের ১লা জানুয়ারি থেকে ৩১শে ডিসেম্বর পর্যন্ত তার আগাম ধারনা।

বছরটা কেমন কাটবে : গত বছরের তুলনায় এ বছর সর্বাঙ্গীণ সময়টা যাবে শুভত্বের দিকে। ব্যবসায় ও পেশায় যোগাযোগ বাড়বে। চাকুরিয়াদের কমবেশি আর্থিক উন্নতি হবে। তীর্থ ভ্রমণে যেতে পারেন। নিজ কিংবা কোনও নিকট আত্মীয়ের গৃহে একাধিকবার শুভ কর্মানুষ্ঠান হবে। কর্মপ্রার্থী ও বিদ্যার্থীদের পক্ষে বছরটা শুভ সূচক। স্বাস্থ্য অনেক ক্ষেত্রে স্বস্তি দেবে না। ভুল বুঝে কেউ কষ্ট দিলে তা গায়ে মাখবেন। কাজ হোক না হোক, যোগাযোগের জায়গাতে কড়াটা নেড়ে আসুন। কোনও গুণের জন্য প্রশংসিত হবেন। বিবাহিত জীবনে পারিবারিক অশান্তির মাত্রা অনেক কমে যাবে। প্রেমিক প্রেমিকারা অভিমানজনিত অশান্তিতে মাঝে মধ্যে ভুগবেন। ওসব পাত্তা দেবেন না।

মিথুন লগ্নের সার্বিক সময়টা যাবে ধীরে ধীরে শুভত্বের দিকে।

কি করলে একটু ভালো থাকবেন : একটা মহালক্ষ্মীর ফটো সংগ্রহ করে যে কোনও বৃহস্পতিবার থেকে পুজো শুরু করতে পারেন। পুজো বলতে প্রতিদিন স্নানের পর (খেয়ে বা না খেয়ে) দুটো ধূপকাঠি দিয়ে আরতি করে তিনবার স্পর্শ প্রণাম করবেন। একটু জল মিষ্টি দেবেন। কাজটা করতে পারলে সার্বিক অশেষ কল্যাণ হবে।

কি রঙের পোশাক পরবেন : হালকা আকাশি, হালকা সবুজ ও হালকা লাল পোশাক এই রাশির পক্ষে লাভদায়ক। সারাদিন, প্রতিদিন ব্যবহার করলে দিন কাটবে মানসিক স্বাচ্ছন্দ্যে। অধিকাংশ কাজে আসবে সাফল্য। স্বভাবসুলভ মনের অস্থিরতা কমবে। যতটা সম্ভব কালো, খয়েরি বা গাঢ় রঙের পোশাক ব্যবহার না করাই ভালো।

এই রাশির জাতক জাতিকারা তমোগুণাশ্রিত। মন এদের উদার, উন্নত নয়। জীবনে একদিকে যৌবনচিত কর্মচাঞ্চল্য, অন্যদিকে তেমন অপরিণত বুদ্ধির বিকাশ। এই রাশির স্বপ্নসৌধ প্রায়ই ভেঙে চুরমার হয়ে যায় নিদারুণ নির্মম বাস্তবতার আঘাতে।

দূরঅভিসন্ধিমূলক কাজে বেশি আনন্দ পায়। ব্যবসা সংক্রান্ত বুদ্ধি এদের প্রশংসনীয়। মৌলিক জ্ঞানের চেয়ে পাণ্ডিত্য বেশি। তর্কে পেরে ওঠা কঠিন।

মিথ্যা কথায় মেষ রাশির মত পটু। স্বভাব চঞ্চল বলে একাধিকবার প্রেমে পড়ে। কোনও প্রেমই দীর্ঘস্থায়ী রাখতে পারে না।

মিথুন রাশির জাতক জাতিকাদের কথার সঙ্গে কাজের সঙ্গতি প্রায়ই পাওয়া যায় না। এরা বিশ্বাস করে ঠকে। অন্যের কথায় প্রভাবিত হয়। এদের যেকোনও ভাবে পরিচিতি বেশি।

আমার জ্যোতিষশাস্ত্রের শিক্ষাগুরু শ্রীশুকদেব গোস্বামীর গ্রন্থের সাহায্য নিয়ে এই অংশটুকু লেখা হয়েছে। এর সঙ্গে সংযোজন করা হয়েছে নিজের পেশাগত জীবনের বেশ কিছু অভিজ্ঞতার কথা। লেখক চিরকৃতজ্ঞ হয়ে রইল উক্ত গ্রন্থের লেখক ও প্রকাশকের কাছে।

Horoscope Gemini

এখানে যে প্রতিকারগুলি রাশি অনুযায়ী করা হল তা শুধুমাত্র এক বছরের জন্য। প্রতিকারগুলি আমার মনগড়া কোনও কথা নয়। বিভিন্ন সময়ে ভারতের নানা প্রান্তে ভ্রমণকালীন পথচলতি সাধুসঙ্গের সময় লোক-কল্যাণে সাধুদের বলা প্রতিকারগুলিই এখানে করা হল।

এবার ব্যক্তিগত রাশি অনুসারে ‘ফল’ কতটা মিলবে সে বিষয়টি খোলসা করে বলা যাক। এখানে যে ফলাফল লেখা হল তা একেবারেই অনুমানভিত্তিক।

নক্ষত্র ভেদে এক এক জাতক-জাতিকার মানসিক গঠন, চিন্তাভাবনা, চারিত্রিক বৈশিষ্ট্য, জীবনপ্রবাহ এক একরকম হয়ে থাকে; এর সঙ্গে থাকে জন্মকালীন রাশিচক্রে শুভাশুভ গ্রহের অবস্থান। রাশি এক হলেও নক্ষত্র ইত্যাদি ভেদে ফলাফলের তারতম্যটাই স্বাভাবিক।

অত্যন্ত সূক্ষ্ম বিচার করে ফলাফল লেখা সম্ভব হয় না। প্রত্যেকটা রাশির কোনও একটা নক্ষত্রকে ধরে গড়ে একটা অনুমানভিত্তিক শুভাশুভ ফল লেখা হয়। ফলে কারও ফল মেলে দারুণভাবে, কারও কিছু কিছু, কারও বা একেবারেই নয়।

সব কথা মিলবে, এমনটা ভাববার কোনও কারণ নেই। এখানে রাশির ওপর ভিত্তি করে ভাগ্যফল নিয়ে যা লেখা তা অভিজ্ঞতায় দেখা একটা আভাস মাত্র। এটাই বাস্তব সত্য বলে ধরে নিয়ে চলাটা কোনও কাজের কথা নয়, চলার কারণ আছে বলেও মনে হয় না।

Show More

7 Comments

  1. আমার মিথুন রাশি বৃশ্চিক লগ্ন পুনর্বসু নক্ষত্র ডেট অফ বার্থ 16 ই জুন উনিশ শ অষ্টআশি আমার এই বছরটা কেমন যাবে যদি একটু বলে দেন

  2. আমার মিথুন রাশি , বৃশ্চিক লগ্ন। ছয় আদ্র নখ্যত্র । কৃ : চতুর্থীতিথী। 4/11/1993 birth date
    Time :7:30am
    আমার সর্দি কিছুতেই ভালো হছে না, বছরটি কেমন যাবে এবং সার্বিক উন্নতি লাভের উপায় যদি একটু বলে দেন।

  3. আমার মিথুন রাশি , বৃশ্চিক লগ্ন। ছয় আদ্র নখ্যত্র । কৃ : চতুর্থীতিথী। 4/11/1993 birth date
    Time :7:30am
    আমার সর্দি কিছুতেই ভালো হছে না, বছরটি কেমন যাবে এবং সার্বিক উন্নতি লাভের উপায় যদি একটু বলে দেন।

  4. My date of birth 19 th June, 1966 , Mithun rashi o Mithun gon, ebochorer baki mas gulo Oct to December kemon jabe? Samber 2024 ta kemon jabe??

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button